শনিবার ২০শে জুলাই, ২০১৯ ইং ৫ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

সংবাদ শিরোনামঃ

কিশোরগঞ্জ চলন্ত বাসে এক নার্সকে ধর্ষণের পর হত্যা

আপডেটঃ ১১:১২ পূর্বাহ্ণ | মে ০৮, ২০১৯

নিউজ ডেস্কঃ

কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী উপজেলার লোহাজুরী ইউনিয়নের গত ৬ই মে সোমবার রাতে  বাহেরচর গ্রামের বাসিন্দা মো:গিয়াস উদ্দিনে মেয়ে মোছা:শাহিনুর আক্তার তানিয়া (২৪) কে চলন্ত বাসে গনধর্ষণের পর হত্যা করা হয়।সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানাযায়, মোছা:শাহিনুর আক্তার তানিয়া,তিনি ঢাকা ইবনেসিনা হাসপাতালের নার্স(সেবিকা) ছিলেন। সোমবার রাতে  কটিয়াদী গামী স্বর্নলতা নামক একটি বাসে করে ঢাকা থেকে বাড়িতে আসছিলো। কিশোরগঞ্জের, ভৈরব মহাসড়ক জামতলী বাসষ্টেন্ডে আসার পর রাত ৯ ঘটিকা সময় বাসের চালক ও বাসের হেলপার ২ জন মিলে শাহিনুর আক্তার তানিয়া কে গণধর্ষণ  করে হত্যা করা হয়। পরে বাস থেকে তার  লাশ ফেলে চলে যায়।স্থানীয়রা মৃত তানিয়ার লাশ উদ্ধার করে কটিয়াদী উপজেলার হাসপাতালে নিয়ে যায়।হাসপাতালে নেয়ার পর ডাক্তার তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।শাহিনুর আক্তার তানিয়ার হত্যার অভিযুক্ত বাসের চালক সহ 2 কে জনকে গ্রেফতার করে কটিয়াদী মডেল থানার পুলিশ।


মোছা:শাহিনুর আক্তার তানিয়া

কটিয়াদীতে থানার ওসি (তদন্ত) শফিকুল ইসলাম বলেন, এ ঘটনায় ড্রাইভার নূরুজ্জামান (৩৯), হেলপার লালন মিয়া (৩৩)কে আটক করা হয়েছে। শাহিনুরের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন, ব্যাগ, কাপড় চোপড় পাওয়া গেছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশ কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয় । তাকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে কি না? জানতে চাইলে তিনি বলেন, ময়না তদন্তের রিপোর্টে বিস্তারিত প্রতিবেদন চাওয়া হবে। তবে তার হাত, মুখ ও শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।
এদিকে তানিয়ার স্বজনরা অপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করে পুলিশের কাছে। 

IPCS News / কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি

সংবাদাতা-মাসুদুল ইসলাম সবুজ তথাসংগ্রহ দাতা-জাকির -রুবেল