বুধবার ২৩শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ৯ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সংবাদ শিরোনামঃ

আসছে উইন্ডোজ-১১, থাকছে যে চমক

আপডেটঃ ৯:২০ অপরাহ্ণ | জুন ০৭, ২০২১

অনেক জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে এবার বাজারে আসছে উইন্ডোজ-১১। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী ২৪ জুন উদ্বোধন করা হবে নতুন এই উইন্ডোজ।

উইন্ডোজের অতীত ভার্সনগুলোর মধ্যে ‘উইন্ডোজ-৮’ ভার্সনের নানা রকম সমস্যার কারণে মাইক্রোসফটকে পড়তে হয়েছিল ব্যাপক সমালোচনা ও তোপের মুখে। পরবর্তীতে দ্রুততম সময়ে অভিষেক হয়েছিল উইন্ডোজ-১০ এর। ওই সময় উইন্ডোজ-৮ ব্যবহারকারীদের বিনা খচরে উইন্ডোজ-১০ আপডেট করে দেওয়া হয়েছিল এবং বলা হয়েছিল উইন্ডোজ-১০ ই হবে হয়তো উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেমের শেষ ভার্সন। 

কিন্তু সেই প্রতিশ্রুতিও মাইক্রোসফট রাখতে পারল না। কারণ উইন্ডোজ-১০ এও রয়েছে বেশ কিছু সমস্যা। তাই সব ভুলভ্রান্তি দূর করে নতুন করে একটি আধুনিক মাপের অপারেটিং সিস্টেমের সূচনা করতে যাচ্ছে মাইক্রোসফট কর্পোরেশন। 

কী থাকছে উইন্ডোজ-১১ এ?

উইন্ডোজ-১১ এর মূল চমক হচ্ছে এর ‘মাইক্রোসফট স্টোর’। উইন্ডোজ-৮ ও উইন্ডোজ-১০ স্বল্প পরিসরে ‘মাইক্রোসফট স্টোর’ থাকলেও নতুন এই ভার্সনের জন্য মাইক্রোসফট স্টোরকে ডিজাইন করা হয়েছে নতুনভাবে। উইন্ডোজ এর বিভিন্ন ধরনের সফটওয়্যার থাকবে এই ‘মাইক্রোসফট স্টোর’ এ এবং এখান থেকেই ইন্টস্টল করতে হবে সবকিছু। 

তবে  নতুন এই ‘মাইক্রোসফট স্টোর’ এ বড় ধরনের সুযোগ রয়েছে ডেভেলপারদের জন্য। এই স্টোরে ডেভেলপাররা তাদের ডেভেলপ করা অ্যাপ্লিকেশন আপলোড করে রাখতে পারবেন এবং ব্যবহারকারীরা ফ্রি কিংবা টাকার বিনিময়ে সেসব অ্যাপ্লিকেশন সরাসরি ‘মাইক্রোসফট স্টোর’থেকে ডাউনলোড ও ইনস্টল করতে পারবেন, ঠিক যেমনটি গুগল প্লে-স্টোর এর ক্ষেত্রে হয়ে থাকে। 

ইউজার ইন্টারফেস কিংবা লুক-এন্ড-ফিল এর বেলাতেও বেশ আকর্ষণীয় করা হয়েছে। বিভিন্ন আইকনগুলোতে চারকোনার পরিবর্তে করা হয়েছে কিছুটা গোলাকৃতির। সিকিউরিটি ফিচারেও বেশ গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে নতুন এই ভার্সনে। তবে চলমান উইন্ডোজ-১০ কে এই নতুন এই উইন্ডোজ-১১ ভার্সনে আপডেট সুবিধা নাও থাকতে পারে অর্থ্যাৎ এই ভার্সনটি নতুন করে কিনে নিতে হবে।