সোমবার ১৫ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ৩১শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

রাজশাহী মহা-নগরীতে উচ্চ স্বরে গান বাজাতে নিষেধ করায় খুন : গ্রেফতার ৫

আপডেটঃ ৩:৩২ অপরাহ্ণ | আগস্ট ০৩, ২০২২

নিউজ ডেস্কঃ

আরএমপি নিউজঃ রাজশাহী মহানগরীর শাহমখদুম থানার হরিষার ডাইং এলাকায় উচ্চ স্বরে সাউন্ড বক্স বাজাতে নিষেধ করায় প্রতিবেশীর চাকুর আঘাতে খুনের ঘটনায় ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে আরএমপি’র  শাহমখদুম থানা পুলিশ।গ্রেফতারকৃতরা হলো শাহমখদুম থানার হরিষার ডাইং এলাকার মো: বকুল আলীর মেয়ে মোসা: খাদিজা (১৯) ও একই এলাকার মো: আসাদ আলীর ছেলে মো: মিঠন (৩০), মো: বাদশা মিয়ার ছেলে মো: মোমিন (২৫), জান মোহাম্মাদের ছেলে মো: সোহেল (৩২) ও কর্ণহার থানার মোল্লা ডাইং এলাকার মৃত নজরুল ইসলামের ছেলে মো: পলাশ (৪০)।ঘটনা সূত্রে জানা যায়, রাজশাহী মহানগরীর শাহমখদুম থানার হরিষার ডাইং এলাকায় বকুলের ছেলে নাহিদ গত ১ আগষ্ট ২০২২ রাত সাড়ে ৯ টায়  উচ্চ স্বরে সাউন্ড বক্সে গান শুনছিলো।

তার প্রতিবেশী মুকুল আলীর মেয়ে অন্তসত্বা ও অসুস্থ হওয়ায় মুকুল আলী নাহিদের বাড়িতে গিয়ে উচ্চ স্বরে গান বাজাতে নিষেধ করেন।নাহিদ তাৎক্ষণিক সাউন্ড বক্সের শব্দ কমিয়ে দিলেও মুকুল সেখান থেকে চলে আসলে আবারও শব্দ বাড়িয়ে দেয়।

মুকুল আলী পুনরায় নাহিদের বাড়িতে গিয়ে উচ্চ স্বরে গান বাজাতে নিষেধ করলে আসামি নাহিদ ও তার পিতা বকুল আলী, মা ও তার বোন মিলে মুকুলকে গালিগালাজ করে এবং তাদের মধ্যে তর্ক-বিতর্ক হয়।এক পর্যায়ে নাহিদ ও তার পরিবারের সদস্যরা লোহার রড দিয়ে মুকুলের মাথায় আঘাত করে এবং চাকু দ্বারা শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাত করে গুরুত্বর জখম করে।

মুকুলের চিৎকার শুনে তার ছোট ছেলে শাহীন আলম ও জামাই আলমগীর সেখানে গেলে তাদেরকেও মারপিট ও চাকু দিয়ে আঘাত করে জখম করে।মকুলের ছেলে শামিম ইসলাম আরও জানায়, ঘটনাস্থলে স্থানীয় লোকজন মুকুলকে উদ্ধারে এগিয়ে গেলে আসামিরা পালিয়ে যায়।

পরবর্তীতে গুরুত্বর আহতবস্থায় মুকুলকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল ২ আগষ্ট ২০২২ (১ আগষ্ট দিবাগত) রাত সাড়ে ১২ টায় মৃত্যু বরণ করেন।মৃত মুকুলের ছেলে মো: শামিম ইসলামের এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে শাহমখদুম থানায় একটি হত্যা মামলা রুজু হয়।

মামলা রুজু পরবর্তীতে উপ-পুলিশ কমিশনার (শাহমখদুম) জনাব মুহাম্মদ সাইফুল ইসলামের তত্ত্বাবধানে শাহমখদুম থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব মো: মেহেদী হাসানের নেতৃত্বে এসআই মো: শরিফুল ইসলাম ও তার টিম আসামিদের অবস্থান সনাক্তপূর্বক গ্রেফতারে অভিযান শুরু করেন।

পরবর্তীতে শাহমখদুম থানা পুলিশের ঐ টিম গতকাল ২ আগষ্ট ২০২২ সকাল ৯ টা হতে রাত ৯ টা পর্যন্ত গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান পরিচালনা করে শাহমখদুম থানার হরিষার ডাইং ও কর্ণহার থানার মোল্লা ডাইং এলাকা হতে আসামিদের গ্রেফতার করে।গ্রেফতারকৃত আসামিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

IPCS News : Dhaka : আরএমপি নিউজ : রাজশাহী।