সোমবার ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সংবাদ শিরোনামঃ

যুক্তরাষ্ট্রের গণ-তন্ত্র সম্মেলনে বাংলাদেশের নাম নেই

আপডেটঃ ২:৫১ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ২৪, ২০২১

নিউজ ডেস্কঃ

আগামী ৯ ও ১০ ডিসেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন গণতন্ত্র সম্মেলন আয়োজন করতে যাচ্ছেন।বিশ্বের ১০০টির বেশি দেশের নেতাদের এই ভার্চুয়াল সম্মেলনে আমন্ত্রণ জানানো হবে।আমন্ত্রিত দেশগুলোর তালিকা গোপন রাখা হলেও একটি তালিকা প্রকাশ করেছে পলিটিকো ম্যাগাজিন।কিন্তু সে তালিকায় বাংলাদেশের নাম নেই।তবে পলিটিকোর এই তালিকা চূড়ান্ত কিনা তা নিশ্চিত নয়।তাই চূড়ান্ত তালিকার খোঁজ করা হচ্ছে।বাইডেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পর পররাষ্ট্রনীতি বিষয়ে তার প্রথম ভাষণে গণতন্ত্র সম্মেলন আয়োজনের অঙ্গীকার করেন।মার্কিন প্রেসিডেন্ট বিশ্বব্যাপী রাশিয়া ও চীনসহ গোটা বিশ্বে কর্তৃত্ববাদী শাসনের বিস্তার ঘটার পরিপ্রেক্ষিতে এই সম্মেলনের আয়োজন করছেন।আমন্ত্রিত দেশগুলোর নেতারা চলতি বছরের ডিসেম্বরে গণতন্ত্র, ব্যক্তিগত ও মত-প্রকাশের স্বাধীনতা, মানবাধিকার বিষয়ে তাদের অঙ্গীকার ব্যক্ত করবেন।

২০২২ সালের ডিসেম্বরে এসব ক্ষেত্রে অগ্রগতি যাচাই করতে আরেকটি ফলোআপ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।মহামারি পরিস্থিতির উন্নতি হলে দেশগুলোর নেতাদের সশরীরে আমন্ত্রণ জানানো হবে।ভার্চুয়াল সম্মেলনের তালিকা এক সপ্তাহ আগে পর্যন্ত পরিবর্তন হতে পারে।যুক্তরাষ্ট্র আমন্ত্রিত দেশগুলোর তালিকা প্রকাশ করেনি।পলিটিকোর তালিকা সঠিক কিনা তা নিশ্চিত নয়।

যুক্তরাষ্ট্রে আমাদের দূতাবাস চূড়ান্ত তালিকা জানার চেষ্টা করছে।ওই কর্মকর্তা আরও বলেন, চলতি বছরের ডিসেম্বরে ভার্চুয়াল সম্মেলনে সব দেশকে আমন্ত্রণ করা হবে না।আগামী বছর সশরীরে উপস্থিত সম্মেলনে এবার বাদ পড়া দেশগুলোকে আমন্ত্রণ জানাতেও পারে।ডোনাল্ড ট্রাম্প বৈদেশিক সম্পর্কের ক্ষেত্রে গণতন্ত্র ও মানবাধিকার নিয়ে আগ্রহী ছিলেন না।

যার কারনে বিশ্বে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্ব হাতছাড়া হয়ে যাচ্ছেে।এই সম্মেলনে আমন্ত্রণ তালিকা নিয়ে বিতর্ক হচ্ছে।সুইডেন, ফ্রান্সের মতো পরিপক্ব গণতন্ত্রের দেশ যেমন আমন্ত্রণ পেয়েছে, তেমনি ফিলিপাইন, পোল্যান্ডের মতো দেশ যেখানে গণতন্ত্র হুমকির মধ্যে পড়েছে তারাও আমন্ত্রিত হয়েছে।জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া আমন্ত্রিত হলেও থাইল্যান্ডকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

মধ্যপ্রাচ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সহযোগী মিসর আমন্ত্রণ পায়নি, আমন্ত্রণ পায়নি ন্যাটোভুক্ত তুরস্ক।আমন্ত্রিত দেশের তালিকা কীসের ভিত্তিতে করা হচ্ছে সেটা স্পষ্ট নয়।মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের সূত্রের বরাতে বলা হচ্ছে, আমন্ত্রণের তালিকা গণতন্ত্রের মানদণ্ড নয়।বিশ্বের ভৌগোলিক অঞ্চলের মধ্যে সুষম এবং বৈচিত্র্যের বিবেচনায় তালিকা করা হচ্ছে।

IPCS News : Dhaka :